মশা মারার সহজ উপায়

আপনি মশা মারার সহজ উপায়গুলো জানেন কি?

গৃহস্থালির টুকিটাকি

মানুষ মশার কামরে অধ্যাবধি পর্যন্ত অতিষ্ঠ। মশা মানুষের প্রকাশ্য শত্রু কিন্তু কিছুই করার উপায় নেই, তবে এটা প্রতিরোধ্য। মশার কামর থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য হয় নিধন, না হয় তাড়ানো এই দুই উপায়ে সম্ভব। তাই নিধন ও তাড়ানোর উপায়গুলো জেনে নিন এবং মশার কামর থেকে স্বস্তি লাভ করুন।

মশা মারার সহজ কৌশল সমূহঃ

মশা মারার বা তাড়ানোর সহজ কৌশল বা উপায়গুলো প্রয়োগ করলে মশা দূর হবেই হবে। নিচের মশা মারার সহজ কৌশলগুলো জেনে নিন।

প্রথমত,  পানির বা জলের সাথে একটু পরিমান ডিটারজেন্ট মিশিয়ে কয়েকটি ছোট্র বাটিতে করে ঘরের কোণায় কোণায় রাখুন। তবে দেখবেন- বাটির পানির উপরে মশা পড়বে এবং সঙ্গে সঙ্গে মারা যাবে।

দ্বিতীয়ত,  প্রতিনিয়ত সন্ধ্যায় ধূঁপ-ছোলার সাথে নিশিন্দা ও নিমপাতা গুঁড়ো করে ধুনো দিলে মশা থেকে রক্ষা পাওয়া সম্ভব।

তৃতীয়ত,  চা-পাতা দিয়ে চা করার পরে তা ফেলে না দিয়ে এই ব্যবহারিত চা-পাতা রোদে শুকিয়ে ধুনোর পরিবর্তে ব্যবহার করুন এবং এই ধোঁয়ায় ঘরের সকল মশা-মাছি পালিয়ে যাবে।

চতুর্থত,  আপনার ঘরের বৈদ্যুতিক বাতিটিকে হলুদ সেলোফেন দিয়ে জড়িয়ে নিন। এর ফলে হলুদ আলো হবে এবং মশা কমে গেছে দেখবেন। কারণ মশা হলুদ আলো দেখতে পারে না।

পঞ্চমত,  মশা তাড়ানোর একটি সহজ কৌশল বা উপায় হল- আর্ধকাপ জলের মধ্যে কয়েক টুকরো কর্পূর মিশিয়ে খাটের নিচে রাখুন। আপনি দেখবে ঘরের মধ্যে আর কোন মশা নেই। তাই মশার উৎপাত থেকে নিশ্চিন্তে ঘুমান।

ষষ্ঠত,  মশা তাড়ানোর আরও একটি সহজ কৌশল বা উপায় হল- নিমপাতা কয়লা বা কাঠ-কয়লায় পোঁড়ালে যে ধোঁয় হবে তাতেই মশা তাড়িত বা নিঃসন্দেহে ঘর থেকে চলে যাবে।

সপ্তমত,  আপনি যদি বৈদ্যুতিক লোডশেডিং এর মুহূর্তে হ্যারিকেন বা কাঁচ দিয়ে ঢাকা বিশিষ্ট বাতি জ্বালানোর সময় এই কাঁচের উপর দু-একটা ব্যবহৃত মশা মারার রিপেলেন্ট রাখবেন। তাতে আলোরও কাজ হবে এবং সঙ্গে সঙ্গে মশা তাড়ানোর কাজও হবে।

যে কেউ এই উপায়গুলোর যেকোন একটি অবলম্বন করে মশার উৎপাত থেকে রক্ষা পেতে পারেন। যদি আপনি এই উপায়গুলো অবলম্বন করে মশার উৎপাত থেকে রক্ষা পান তবে আমাদের সাইটে কমেন্ট করে জানাতে ভুল করবেন না।

“ধন্যবাদ”